বুধবার , ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ | ৪ঠা বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. আইন ও আদালত
  3. আন্তর্জাতিক
  4. ঈশ্বরদী
  5. করোনাভাইরাস
  6. কৃষি
  7. ক্যাম্পাস
  8. খেলাধুলা
  9. গল্প ও কবিতা
  10. চাকরির খবর
  11. জাতীয়
  12. তথ্যপ্রযুক্তি
  13. তারুণ্য
  14. ধর্ম
  15. নির্বাচন

ঈশ্বরদীতে বাবার লাশ বাড়িতে রেখে মেয়ে এসএসসি পরীক্ষা কেন্দ্রে

প্রতিবেদক
আমাদের ঈশ্বরদী রিপোর্ট :
ফেব্রুয়ারি ২৮, ২০২৪ ১১:১৮ অপরাহ্ণ

পাবনার ঈশ্বরদীতে বাবার লাশ বাড়িতে রেখে এক মেয়ে কেন্দ্রে গিয়ে এসএসসি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করার হৃদয়বিদারক ঘটনা ঘটেছে। আজ বুধবার (২৮ ফেব্রুয়ারী) উপজেলার বাঁশেরবাদা বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, ঈশ্বরদীর সাহাপুর ইউনিয়নের আওতাপাড়া বাজারের বিশিষ্ট তেল ও যন্ত্রাংশ ব্যবসায়ী এবং একই ইউনিয়নের গড়গড়ি গ্রামের বাসিন্দা সিদ্দিকুর রহমান মালিথা (৫৭) গতকাল মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে ৫টায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাজধানী ঢাকার বারডেম হাসপাতালে মারা যান।

এদিকে, মরহুম সিদ্দিক মালিথার মেয়ে সুরাইয়া খাতুন (১৬) ওই এলাকার নুরজাহান বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজ থেকে এ বছরের চলতি এসএসসি পরীক্ষা দিচ্ছিলেন। সকাল ১১ টায় দীঘা কবরস্থানে বাবার নামাজে জানাজা, অন্যদিকে সকাল ১০ টায় তার পূর্ব নির্ধারিত “তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি” বিষয়ে পরীক্ষা। সে কারণে বাবার লাশ বাড়িতে রেখেই তাকে কেন্দ্রে পরীক্ষা দিতে আসতে হয়।

পরীক্ষা কেন্দ্র সচীব এবং বাঁশেরবাদা উচ্চ বিদ্যাললের প্রধান শিক্ষক মো. শামসুল ইসলাম জানান, বাবার লাশ বাড়িতে রেখে কেন্দ্রে এসে একটি মেয়ের পরীক্ষা দেওয়ার ঘটনা অত্যন্ত মর্মান্তিক ও হৃদয়বিদারক। মেয়েটি পরীক্ষা কেন্দ্রে এসে বারবার মূর্ছা যাচ্ছিলেন, মানসিকভাবে প্রচন্ড ভেঙে পড়ছিলেন। আমার যথাসম্ভব তাকে মানসিক শক্তি যুগিয়ে ঠিকমতো পরীক্ষা দেওয়ানোর চেষ্টা করেছি।

মৃত বাবার লাশ বাড়িতে রেখে এভাবে মেয়ের এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নেওয়ার ঘটনাটি এলাকায় ব্যাপক আলোড়ন সৃষ্টি করে।

সর্বশেষ - ঈশ্বরদী

error: Content is protected !!