দুই বছর পর বাংলাদেশ-ভারতের পঞ্চম রেলপথ বসানোর কাজ শুরু

আমাদের ঈশ্বরদী রিপোর্টআমাদের ঈশ্বরদী রিপোর্ট
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ১১:২৭ PM, ৩০ ডিসেম্বর ২০২২

দুই বছর বন্ধ থাকার পর ফের শুরু হলো বাংলাদেশ ও ভারতের পঞ্চম রেলপথ বসানোর কাজ। জমি অধিগ্রহণের বাধা থাকা গত দুই বছর চিলাহাটি-হলদিবাড়ি রেলপথের চিলাহাটি রেল ষ্টেশনের কাজ বন্ধ ছিল।

জানা গেছে, সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ জমি অধিগ্রহণের নোটিশ দেওয়ার পর রেলওয়ের লুপলাইন লাইন বসানোর কাজ শুরু হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৯ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় রেলপথ নির্মাণের জন্য জনপ্রয়োজন ও জনস্বার্থমূলক উদ্দেশ্যে সম্পত্তি অধিগ্রহণ ও হুকুমদখল আইনে ২ দশমিক ৮ একর জমির সতের মালিকের হাতে ৪ ধারা নোটিশ দেয় ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ম্যাক্স ইনফ্রাসট্রাকচার।

তারপরই আনুষ্ঠানিকভাবে রেলওয়ের লুপলাইন লাইন বসানোর কাজ শুরু হয়।
কাজ শুরুর আনুষ্ঠানিকতায় অংশ নেন পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের পাকশী ডিভিশনের প্রকৌশলী-২ প্রকল্প পরিচালক আব্দুর রহিম ও অিধিগ্রহণকৃত জমির ১৭ মালিক।

২০১৯ সালের ২১ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশের মোংলা পোর্ট হয়ে ভারতের উত্তরপূর্ব অংশ নেপাল ও ভুটানের মধ্যে আমদানি-রপ্তানি কার্যক্রম পরিচালনায় যোগাযোগ অবকাঠামো মনোন্নয়নের মাধ্যমে বাণিজ্যিক সুবিধা জোরদারের লক্ষ্যে ডোমার উপজেলার চিলাহাটি থেকে জিরো পয়েন্ট পর্যন্ত রেলওয়ের কাজ শুরু হয়।

স্টেশনটি আন্তর্জাতিক মানে রূপান্তর করার লক্ষ্যে রেল বিভাগ নানা প্রকল্পের কাজ শুরু করে। জমি অধিগ্রহণ না হওয়ায় ২০২০ থেকে স্টেশনের সব কাজ বন্ধ থাকে।

পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের পাকশী ডিভিশনের প্রকৌশলী-২ প্রকল্প পরিচালক আব্দুর রহিম এসব তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, রেলপথ উন্নয়নে আর কোনো বাধা নেই। দ্রুত কাজ শেষ করা যাবে।

আপনার মতামত লিখুন :